তাহিরপুরে মা-ছেলেকে কুপিয়ে জখম, ৫ জনের নামে থানায় মামলা
মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ১১:৩৫

তাহিরপুরে মা-ছেলেকে কুপিয়ে জখম, ৫ জনের নামে থানায় মামলা

তাহিরপুর প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১০/০৬/২০২৪ ১১:৪২:১৬

তাহিরপুরে মা-ছেলেকে কুপিয়ে জখম, ৫ জনের নামে থানায় মামলা

ছবি: সংগৃহীত


সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে পাটাবুকা গ্রামে মা-ছেলে কে কুপিয়ে আহত করার ঘটনায় ৫জনের নাম উল্লেখ করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। 

সোমবার সন্ধ্যায় এ ঘটনায় আহত মোবাশ্বির আলম (৪২) বাদী হয়ে তাহিরপুর থানায় মামলা দায়ের করে। মোবাশ্বির আলম উপজেলার দক্ষিণ শ্রীপুর ইউনিয়নের পাটাবুকা গ্রামের মৃত মিজাজুল হকের ছেলে।

অভিযুক্তরা হল- উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের পাটাবুকা গ্রামের মৃত ইব্রাহিম মিয়ার ছেলে ইসমাইল মিয়া(৪৫), তার দুই ছেলে সালমান মিয়া (২৫) ও আরামান মিয়া (২২), একই গ্রামের মৃত রহিছ মিয়ার ছেলে শামীম মিয়া(৩০) ও   মজলুল হকের ছেলে কয়েস মিয়া (৩২)।

অভিযোগ সূত্রে জানাযায়, অভিযুক্ত ইসমাইল মিয়া ঘটনার দুই দিন আগে তুচ্ছ বিষয় নিয়ে মোবাশ্বির আলমের রাইস মেইলের দুই কর্মচারীকে মারধর করে। মারধরের বিষয়টি নিয়ে রবিবার (৯জুন) সকাল ৭টার দিকে ইসমাইলের কাছে জানতে চাইলে ইসমাইল তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। পরে এক পর্যায়ে ইসমাইলের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে মোবাশ্বিরের উপর হামলা করে। মোবাশ্বিরের চিৎকার শুনে তার মা দিলরাজ বেগম (৬৫) এগিয়ে আসলে তাকেও দেশীয় অস্ত্র দিয়ে মারাত্মক ভাবে আহত করে ইসমাইলের লোকজন। পরে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। আহত দিলরাজ বেগমের অবস্থা আশঙ্কা জনক হওয়ায় তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। 

এবিষয়ে তাহিরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন বলেন, মা ছেলে কে কুপিয়ে আহত করার ঘটনায় আহত মোবাশ্বির বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। অভিযুক্তদের দ্রুত গ্রেফতার করার প্রক্রিয়া চলছে।

এম সি


This is the free demo result. For a full version of this website, please go to Website Downloader